• মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ০৭:২৮

রোহিত চেন্নাইকে নেতৃত্ব দিতে পারে

প্রতিনিধি: / ৪২ দেখেছেন:
পাবলিশ: মঙ্গলবার, ১২ মার্চ, ২০২৪

স্পোর্টস: মাহেন্দ্র সিং ধোনি মানেই যেমন চেন্নাই সুপার কিংস, রোহিত শার্মা মানেই তেমনি মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। দীর্ঘদিন একসঙ্গে পথচলায় এই ক্রিকেটাররা হয়ে উঠেছেন ফ্র্যাঞ্চাইজির সমার্থক। তবে রোহিত ও মুম্বাইয়ের সম্পর্কে ফাটল ধরেছে স¤প্রতি। ভবিষ্যতে তাই সম্পর্কচ্ছেদের ব্যাপারটি উড়িয়ে দিচ্ছেন না সাবেক ভারতীয় ব্যাটসম্যান আম্বাতি রায়ডু। সেক্ষেত্রে রোহিতকে তিনি দেখতে চান চেন্নাইয়ে। তার মতে, ধোনি যদি এবারের আসর দিয়ে অবসরে চলে যান, তাহলে সামনে চেন্নাইয়ের নেতৃত্বেও দেখা যেতে পারে রোহিতকে। আইপিএলের শুরু থেকে তারকাসমৃদ্ধ দল গড়লেও প্রথম ট্রফির জন্য মুম্বাইকে অপেক্ষা করতে হয় ষষ্ঠ আসর পর্যন্ত। রোহিতের নেতৃত্বেই তাদের অপেক্ষার অবসান হয়। পরে রোহিতের হাত ধরেই তারা হয়ে ওঠে সফল এক ফ্র্যাঞ্চাইজি। ২০১৩ থেকে ২০২০ পর্যন্ত আট আসরের পাঁচটিতেই তারা শিরোপা জয় করে রোহিতের নেতৃত্বে। তবে গত তিন আসরে তারা ফাইনালে খেলতে পারেনি। এবারের আসরের আগে নাটকীয়ভাবে চোখধাঁধানো পারিশ্রমিকে তারা গুজরাট টাইটান্স থেকে দলে নিয়ে আসে হার্দিক পান্ডিয়াকে। পরে রোহিতকে সরিয়ে এই অলরাউন্ডারকে অধিনায়কও ঘোষণা করে তারা। এটা নিয়ে তুমুল আলোচনা-সমালোচনা হয় ভারতীয় ক্রিকেটে। মুম্বাইয়ের সমর্থকদের অনেকেই মানতে পারেননি এই সিদ্ধান্ত। পরে মুম্বাইয়ের কোচ মার্ক বাউচার ব্যাখ্যা দেন, ব্যাটসম্যান রোহিতকে সেরা চেহারায় পেতে ও তার ওপর চাপ কমাতেই নেতৃত্বে পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা। বাউচারের সেই কথার ভিডিওতে সামাজিক মাধ্যমে রোহিতের স্ত্রী রিতিকা সাজদেহ মন্তব্য করেন, “এখানে কত কিছুই যে ভুল আছেৃ।” রোহিত এই প্রসঙ্গে এখনও কোনো মন্তব্য করেননি, তবে তার অসন্তুষ্টির ব্যাপারটি ফুটে ওঠে স্ত্রীর ওর মন্তব্য থেকেই। হার্দিক অবশ্য এখনও পর্যন্ত নেতৃত্বে দারুণ সফল আইপিএলে। গুজরাট টাইটান্স অভিষেক আসরেই চমকপ্রদ পারফরম্যান্সে শিরোপা জিতে নেয় তার নেতৃত্বে। গত আসরেও তারা রানার্স আপ হয়। আইপিএলের সাফল্যের হাত ধরে জাতীয় দলেও বেশ কিছু ম্যাচে নেতৃত্ব দেন এই অলরাউন্ডার। তবে গুজরাটে সফল হলেও মুম্বাইয়ে অধিনায়ক হার্দিকের সাফল্য নিয়ে সন্দিহান রায়ডু। নিউজ২৪কে সাক্ষাৎকারে তিনি বললেন, দুই ফ্র্যাঞ্চাইজির ধরনই আলাদা। “রোহিতকে অন্তত এই বছর নেতৃত্বে রেখে দেওয়া উচিত ছিল। হার্দিককে হয়তো আগামী বছর এই দায়িত্বে আনা যেত। রোহিত তো এখনও ভারতীয় জাতীয় দলের টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক।” “আমি ব্যক্তিগতভাবে মনে করি, তারা তাড়াহুড়ো করে সিদ্ধান্ত নিয়েছে। যদিও তাদের ব্যাপার, তারাই ভালো জানে। তবে কাজটা কঠিন হবে (হার্দিকের জন্য)। গুজরাট টাইটান্সের ব্যাপার ছিল আলাদা। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সে কাজটা সহজ নয়, কারণ এত বেশি তারকা এই দলে। এখানে চাপও অনেক এবং সবাই তা সামলাতে পারে না।” এবারের আইপিএল শেষ হতে হতে রোহিতের বয়স ৩৭ পেরিয়ে যাবে। তবে তিনি আরও অনেক দিন খেলে যাবেন বলেই ধারণা রায়ডুর। সেক্ষেত্রে রোহিতের ভবিষ্যৎ ঠিকানা দেখছেন তিনি চেন্নাইয়েই। এই আসর দিয়ে ধোনি আইপিএলকে বিদায় জানাতে পারেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। সেক্ষেত্রে হলুদ জার্সিতে রোহিতকে টস করতে দেখলেও অবাক হবেন না চেন্নাইয়ের হয়ে প্রায় ২ হাজার রান করা ব্যাটসম্যান রায়ডু। “রোহিত আরও ৫-৬ বছর খেলতে পারে। অধিনায়কত্ব করতে চাইলে গোটা দুনিয়া খোলা আছে তার সামনে। যে কোনো জায়গায় সে অধিনায়ক হতে পারে।” “তবে সেটা নির্ভর করছে তার ওপর। এত বছর ধরে সে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সে খেলছে এবং এত ট্রফি জিতেছেৃ। এরপর সেখানে (চেন্নাইয়ে) যেতে চাইলে, কেন নয়! আমি তাকে সামনে চেন্নাইয়ে দেখতে চাই এবং এমএস (ধোনি) যদি অবসরে যায়, রোহিত চেন্নাইকে নেতৃত্বও দিতে পারে!” এবারের আইপিএল শুরু হবে আগামী ২২ মার্চ।


এই বিভাগের আরো খবর
https://www.kaabait.com