• শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ০৯:৪১

মোদীর নতুন মন্ত্রিসভা কেমন হল

প্রতিনিধি: / ১৬ দেখেছেন:
পাবলিশ: সোমবার, ১০ জুন, ২০২৪

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: টানা তৃতীয় মেয়াদে ভারতের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেওয়া নরেন্দ্র মোদীর জোট সরকারে মোট মন্ত্রী ৭২ জন। এদের একজন প্রধানমন্ত্রী মোদী নিজে আর বাকি ৭১ জনের মধ্যে ৩০ জন ক্যাবিনেট মন্ত্রী, পাঁচজন স্বতন্ত্র দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রতিমন্ত্রী এবং ৩৬ জন প্রতিমন্ত্রী। মোদীর মন্ত্রিসভায় এবার নারী মন্ত্রী সাতজন। এদের মধ্যে দুইজন ক্যাবিনেট মন্ত্রী, তারা হলেন নির্মলা সীতারমণ ও ঝাড়খÐের কোডারমা থেকে নির্বাচিত বিজেপি সাংসদ অন্নপূর্ণ দেবী। মোদীর গত মন্ত্রিসভা থেকে এবার নারী মন্ত্রীর সংখ্যা চারজন কম। নতুন মন্ত্রিসভায় নতুন মুখ ৯টি। এদের মধ্যে তিনজন সাবেক মুখ্যমন্ত্রী এবং একজন অভিনেতা থেকে রাজনীতিকে পরিণত হওয়া দক্ষিণের রাজ্য কেরালা থেকে নির্বাচিত বিজেপির প্রথম লোকসভা সদস্য সুরেশ গোপী। মন্ত্রীর কে কোনো দায়িত্ব পেলেন তা মঙ্গলবার ঘোষণা করা হবে বলে জানিয়েছে ভারতীয় গণমাধম এনডিটিভি। তৃতীয় মেয়াদে মোদী একটি জোট সরকারের প্রধান হয়েছেন। ২০১৪ সালে প্রথম প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর থেকে তৃতীয় মেয়াদে এসে প্রথমবারের মতো একটি জোট সরকারের নেতৃত্ব দিচ্ছেন তিনি। ২০১৪ ও ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনে দল হিসেবে মোদীর বিজেপি একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা (অন্তত ২৭২ আসন) পেলেও এবার তারা ৩২টি আসন কম পাওয়ায় জোটের শরিকদের ওপর নির্ভর করে তাদের সরকার গঠন করতে হয়েছে। গত রোববার নয়া দিল্লির স্থানীয় সময় সন্ধ্যায় ভারতের রাষ্ট্রপতি ভবনে প্রেসিডেন্ট দ্রৌপদী মুর্মু প্রধানমন্ত্রী মোদী ও তার ক্যাবিনেটকে শপথ পড়ান। মোদীর পর যারা শপথ নিয়েছেন তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলেন বিজেপির জ্যেষ্ঠ নেতা রাজনাথ সিং, অমিত শাহ, নীতিন গড়করি, নির্মলা সীতারমণ ও এস জয়শঙ্কর। রাষ্ট্রপতি ভবনের প্রাঙ্গণে শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। এদিন ভারতের রাজধানীতে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৪২ ডিগ্রি সেলসিয়াস হতে পারে বলে পূর্বাভাস দিয়েছিল দেশটির আবহাওয়া দপ্তর। মোদীর পরপরই শপথ নেন রাজনাথ সিং ও অমিত শাহ। বিগত মন্ত্রিসভার মতো রাজনাথ প্রতিরক্ষা ও অমিত স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ই সামলাবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। এদের পর নীতিন গড়করি, বিজেপি সভাপতি জেপি নাড্ডা, শিবরাজ সিং চৌহান, নির্মলা সীতারমণ, এস জয়শঙ্কর ও মনোহর লাল খাত্তার মন্ত্রী হিসেবে শপথ নেন। এর মধ্যে নীতিন গড়করি সড়ক ও জনপথ, নির্মলা সীতারমণ অর্থ ও জয়শঙ্কর পররাষ্ট্রমন্ত্রী পদে বহাল থাকবেন বলে বিভিন্ন গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে। বিজেপির নেতাদের পর ন্যাশনাল ডেমোক্র্যাটিক জোটের (এনডিএ) অংশীদারদের মধ্যে প্রথম শপথ নেন জনতা দলের (সেক্যুলার) এইচডি কুমারাস্বামী। এর পরপর শপথ নেন বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতিশ কুমারের সংযুক্ত জনতা দলের (জেডিইউ) নেতা লালন সিং। ভারতের উত্তরপূর্বাঞ্চলীয় রাজ্যগুলোর নেতাদের মধ্যে প্রথম শপথ নেন সর্বানন্দ সোনোয়াল, তারপর নেন কিরেন রিজিজু। এর দু’জনই ক্যাবিনেট মন্ত্রী হিসেবে শপথ নিয়েছেন। শপথ অনুষ্ঠানের পর সামাজিক মাধ্যম এক্সে করা এক পোস্টে জওহরলাল নেহেরুর পর তৃতীয় মেয়াদে প্রধানমন্ত্রী হওয়া ভারতের একমাত্র নেতা মোদী বলেছেন, এই মন্ত্রীসভা তরুণ ও অভিজ্ঞদের সমন্বয়ে গঠিত, আমরা জনগণের জীবনমান উন্নয়নে সম্ভাব্য সবকিছু করবো।


এই বিভাগের আরো খবর
https://www.kaabait.com