• মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ০৬:১৬

বোর্ড সভাপতি তামিমের সমস্যা প্রসঙ্গে যা বললেন

প্রতিনিধি: / ৮২ দেখেছেন:
পাবলিশ: শনিবার, ৯ মার্চ, ২০২৪

স্পোর্টস: অনেক কিছু ঠিক হলেই কেবল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফিরবেন তামিম ইকবাল। বিপিএলের ফাইনাল জিতে এমন কথাই জানিয়েছিলেন তিনি। তবে অনেক কিছু বলতে কী বুঝিয়েছেন, সেটি অবশ্য স্পষ্ট করেননি বাঁহাতি এই ওপেনার। আশা করা হচ্ছিলো, তদন্ত রিপোর্ট প্রকাশ হওয়ার পর এই ব্যাপারে কিছু জানাতে পারবেন বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। গণমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে তিনি জানিয়েছেন, তামিমের সমস্যা কোথায়, সেটা তার জানা নেই। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালনা পর্ষদের সভা অনুষ্ঠিত হয় শনিবার। বোর্ড সভায় ২০২৩ বিশ্বকাপ ব্যর্থতার জন্য করা তদন্ত কমিটির রিপোর্ট নিয়ে আলোচনা করা হয়। তারপর তিন পাতায় সেই প্রতিবেদন পকেটে নিয়েই গণমাধ্যমের সামনে দাঁড়ান বোর্ড প্রধান। প্রতিবেদনে কী আছে, এমন প্রশ্নে নাজমুল হাসানের উত্তর, ‘এখানে তেমন কিছু নেই।’ এরপরই তামিম প্রসঙ্গে কথা বলেন বিসিবি সভাপতি। গত জুলাই মাসে হুট করেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের সিদ্ধান্ত নেন বাঁহাতি ওপেনার। একদিনের ব্যবধানে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপের পর সিদ্ধান্ত বদলও করেছেন। সেপ্টেম্বরে বিশ্বকাপের আগে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে দুটি ম্যাচও খেললেও বিসিবির বেশ কিছু সিদ্ধান্ত নিয়ে হতাশ ছিলেন। শেষ পর্যন্ত বিশ্বকাপ দল ঘোষণার কয়েকদিন আগে নিজের নাম প্রত্যাহার করেন দেশসেরা এই ওপেনার। এরপর থেকেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বাইরে আছেন তিনি। বিপিএলের শিরোপা জেতার দিন গণমাধ্যমকে তামিম বলেছিলেন, ‘একটা জিনিস পরিষ্কারভাবেই আপনাদের বলতে চাই- আমার জন্য ফিরে আসার ক্ষেত্রে অনেক কিছু ঠিক হতে হবে। নয়তো শুধু এসে খেলার কোনও পয়েন্ট নেই।’ এরই মধ্যেই সবার আগ্রহ ছিল তদন্ত রিপোর্ট নিয়ে। আশা করা হচ্ছিলো রিপোর্ট প্রকাশের পর হয়তো তামিমের ব্যাপারে কোনও সিদ্ধান্ত নেবে বাংলাদেশ ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা। তার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরার প্রশ্নে পাপন বলেছেন, ‘সবার সঙ্গেই আমার সম্পর্ক আছে বলে আমি মনে করি। আমি একা মনে করলে তো হবে না। তামিমের বিষয়টা একটু স্পর্শকাতর এ কারণে যে, হুট করে কেন একটা ম্যাচ খেলে ছেড়ে দিল এটা এখনও জানি না। প্রথম সমস্যাই যদি না জানি পরবর্তীতে কী হলো, সেই সমাধান দিতে পারবে না। আগে ওর জিনিসটা জানা দরকার।’ প্রকাশ্যে তামিম কিছু না বললেও জানা গেছে হাথুরুসিংহের সঙ্গে দ্বন্দের কারণেই তিনি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরছেন না। বিষয়টি নিয়ে জাতীয় একটি দৈনিকে খবর প্রকাশিত হয়। সেখানে বলা হয় হাথুরুসিংহে থাকা অবস্থায় তামিম জাতীয় দলে খেলবেন না। বোর্ড সভাপতির কাছে জানতে চাওয়া হয় তামিম-হাথুরুসিংহেকে একই ড্রেসিংরুমে দেখা যাওয়ার সম্ভাবনা কতখানি। পাপন বলেন, ‘সম্ভব কিনা এটা বোঝার জন্য ওদের সঙ্গে বসতে হবে। তামিমের সঙ্গে বসা খুবই জরুরি। তার পরিকল্পনা জানলে সামনে অগ্রসর হতে পারবো। হেড কোচের সঙ্গে বসার মতো কিছু দেখছি না। তামিম যদি খেলতে চায় অবশ্যই খেলবে, এ ব্যাপারে কোনও সন্দেহ নেই। এজন্য কোচকে জিজ্ঞেস করার কী আছে?’ তামিমের সঙ্গে কবে আলোচনায় বসা সম্ভব- এমন প্রশ্নে বিসিবি সভাপতি বলেছেন, ‘আমাদের সিরাজ ভাই ও জালাল ভাইকে (দুই বোর্ড পরিচালক) বলেছিলাম তামিমের সঙ্গে বসে ওর পরিকল্পনা জানতে। তারপর আমিও বসবো। তখন বিপিএল তুঙ্গে। সে সময় তারা বসতে পারেননি, তবে যোগাযোগ হয়েছে। বিপিএলের পরপরই বসার কথা ছিল কিন্তু ও দেশের বাইরে চলে গেছে। ও যাওয়ার আগে বলে গেছে এসে আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করবে, করলে অবশ্যই বসা হবে।’ নাম প্রকাশ না করা এক সূত্রের উদ্ধৃতি দিয়ে একটি জাতীয় দৈনিক প্রকাশ করা হয়, বিশ্বকাপ দলের সঙ্গে থাকা দুজন বোর্ড পরিচালকের বিরুদ্ধে হস্তক্ষেপের অভিযোগ এনেছেন ক্রিকেটাররা। যারা দলের ভেতর প্রভাব ফেলেছেন, যা অস্বস্তিতে ফেলেছে মূল্যায়ন কমিটিকে। তবে এই রিপোর্টে সে সব কিছু পাননি বলেই জানালেন পাপন, ‘আমাকে চেয়ারম্যান একটা রিপোর্টই দিয়েছে। এখানে কোনও পরিচালক দূরে থাক, এমন কোনও লাইনই নেই, শব্দও নেই। এরকম রিপোর্ট তো প্রতিদিনই আসে। আমাকে যে রিপোর্ট দেওয়া হয়েছে এখানে কিচ্ছু নেই। গতকাল শনিবার আমি জালাল ভাই, সুজন ও কয়েকজন পরিচালকের সামনে পুরো রিপোর্ট পড়ে শুনিয়েছি। বলেছি দেখেন কোথায় কী আছে। উনারা দেখলেন, এরকম কিচ্ছু নেই। এর বাইরে কেউ কিছু বললে আমাদের করার কিছু থাকে না।’ পাপন আরও বলেছেন, ‘ইতোমধ্যে কাজ হচ্ছে। আপনাদের তো বোঝার কথা। অনেক পরিবর্তিন দেখার কথা এতদিন। গতকাল শনিবার আমি বলেছি সবাইকে রিপোর্টটা দিয়ে দিতে। আর যে দুজনের নাম এসেছিল, এদিন আমি তাদের পড়ে শুনিয়েছি প্রতিটি লাইন। যেসব নিয়ে আলাপ হচ্ছে সেসব কথা আমার কাছে দেওয়ার রিপোর্টগুলোর মধ্যে নেই।’


এই বিভাগের আরো খবর
https://www.kaabait.com