• শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ০৬:২৭

কুসুম শিকদার দীর্ঘ ৫ বছর পর নতুন রূপে আসছেন

প্রতিনিধি: / ১৩ দেখেছেন:
পাবলিশ: বুধবার, ৩ জুলাই, ২০২৪

বিনোদন: নাটকের অতিপরিচিত মুখ অভিনেত্রী কুসুম শিকদার এবার সিনেমা পরিচালনায় আসছেন। যদিও সেই কথা গত বছরই শোনা গিয়েছিল। চলতি বছর পরিচালক হিসেবে যাত্রা শুরু করেন। তবে নীরবে সেই দায়িত্ব নিয়ে পুরো সিনেমার শুটিং শেষ করেন এ অভিনেত্রী। সিনেমার শুটিং শেষ করার সেই ছবির ছাড়পত্রও পেয়েছেন তিনি। চলতি বছরই সিনেমাটি দর্শকদের দেখাতে চান কুসুম শিকদার। পাঁচ বছর পর নিজের পরিচালনায় ক্যামেরার সামনে দাঁড়ালেন তিনি। সিনেমার নাম ‘শরতের জবা’। সন্তানের মতোই সিনেমাটি একটু একটু করে নির্মাণ করেছেন এ অভিনেত্রী। ইতোমধ্যে সিনেমাটি সেন্সর ছাড়পত্র পেয়েছে। এতদিন সে তথ্যও গোপন রেখেছিলেন তিনি। আগামী দুই মাসের মধ্যেই সিনেমাটি মুক্তি পেতে চলেছে। এখন প্রচারে ব্যস্ত থাকতে চান পরিচালক। স¤প্রতি গণমাধ্যমে এ অভিনেত্রী বলেন, ‘সব ঠিক থাকলে আগামী সেপ্টেম্বর নাগাদ আমার ছবি ‘শরতের জবা’ সিনেপ্রেমীদের উপহার দিতে চাই। এখনো প্রতিনিয়ত সিনেমাটি নিয়েই কাজ করে যাচ্ছি। তিনি বলেন, সিনেমা হলের জন্য আলাদা করে প্রস্তুত করছি। সেটির জন্য সাউন্ড ঠিক করতে অনেক সময় লেগে যাচ্ছে। অভিনেত্রী হিসেবে এসব অভিজ্ঞতা নতুন এবং পরিচালক হিসেবে কাজটি চ্যালেঞ্জিং বলেও জানান কুসুম শিকদার।’ পরিচালক বলেন, ‘গল্প থেকে শুরু করে সব জায়গায় আমাকে ঘনিষ্ঠভাবে থাকতে হয়েছে। চিত্রনাট্য, সম্পাদনা, কালার গ্রেডিং, সাউন্ড ডিজাইন থেকে শুরু করে সবই আমাকে পরিকল্পনা করতে হয়েছে। অন্যরা সহযোগিতা করছেন কিন্তু মূল কাজটি আমি নিজে বুঝে করেছি। সিনেমা পরিচালনা করতে গিয়ে যেমন আনন্দ লেগেছে, তেমনই কষ্টেরও বটে। সিনেমার দৈর্ঘ্য যখন কমাতে হয়, তখন খুবই কষ্ট লাগে। যতœ করে ছবি নির্মাণ করে সেখানে কোনো দৃশ্য ফেলে দেওয়া কষ্টের বলেও জানালেন এ অভিনেত্রী। তিনি বলেন, ‘পরিচালক হিসেবে নিজের কাছেই স্যাক্রিফাইস করেছি। আমি শুধু চাই, আমার দর্শকরা নতুন কুসুম শিকদারকে দেখুক।’ তিনি বলেন, ‘পরিচালক হিসেবে প্রতিমুহূর্তে শিখেছি। এত চাপ সত্তে¡ও পরিচালনায় আমি এনজয় করেছি। এটা আমার প্রাপ্তি।’ গত মাসে সিনেমাটি সেন্সর ছাড়পত্র পেয়েছে। এখন সিনেমাটির মুক্তির প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আগামী সেপ্টেম্বর মাসে সিনেমাটি মুক্তি দেওয়ার ইচ্ছে আছে। এখন প্রচারণায় ব্যস্ত সময় কাটাতে চাই। এ সিনেমায় আরও যারা আছেন, তা হলেন- অভিনেত্রী-পরিচালকের সহ-অভিনেতা ইয়াশ রোহান। প্রথমবারের মতো জুটিবদ্ধ হলেন তারা। এ ছাড়া আরও অভিনয় করেছেন- শহীদুল আলম সাচ্চু, নরেশ ভ‚ঁইয়া, জিতু আহসান, বড়দা মিঠু, অশোক ব্যাপারী প্রমুখ। উল্লেখ্য, কুসুম শিকদার একটা সময় নাটক ও চলচ্চিত্রে নিয়মিত মুখ ছিলেন। পাঁচ বছর আগে ছন্দপতন। ব্যস্ততার কারণে দূরে সরে যান তিনি। মাঝে কিছু দিন নিজের কবিতা ও গানের মিউজিক ভিডিওতে মডেল হলেও অভিনয়ে আর দেখা যায়নি।


এই বিভাগের আরো খবর
https://www.kaabait.com