• শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ০১:০৯

কলকাতা নাটকীয় জয় পেয়েছে

প্রতিনিধি: / ৪৬ দেখেছেন:
পাবলিশ: রবিবার, ২৪ মার্চ, ২০২৪

স্পোর্টস: জয়ের জন্য শেষ তিন ওভারে দরকার ৬০ রান। অসম্ভব না হলেও অনেক কঠিন। হাইনরিখ ক্লসেনের খুনে ব্যাটিংয়ে সেই কঠিন কাজটাই প্রায় করে ফেলছিল সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। এক পর্যায়ে সমীকরণ দাঁড়াল ৫ বলে ৭ রান, ম্যাচ তখন হায়দরাবাদের মুঠোয়। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পারল না তারা অল্পের জন্য। শেষ ওভারে হার্শিত রানার দারুণ বোলিংয়ে রোমাঞ্চকর জয় পেল কলকাতা নাইট রাইডার্স। চলতি আইপিএলের দ্বিতীয় দিন শনিবার কলকাতার জয় ৪ রানে। ২০৯ রানের লক্ষ্যে হায়দরাবাদ করতে পারে ২০৪। বিফলে গেছে ক্লসেনের ৮ ছক্কায় ২৯ বলে ৬৩ রানের বিস্ফোরক ইনিংস। শেষ ৫ বলে স্রেফ ২ রান দিয়ে ২ উইকেট নিয়ে হার্শিত শেষের নায়ক হলেও কলকাতার মূল নায়ক আন্দ্রে রাসেল। ২৫ বলে ৭ ছক্কা ও ৩ চারে অপরাজিত ৬৪ রানের বিধ্বংসী ইনিংসের পর হাত ঘুরিয়ে ২ উইকেট নেন ক্যারিবিয়ান অলরাউন্ডার। ইডেন গার্ডেন্সে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ১৪তম ওভারে কলকাতার রান ছিল ৬ উইকেটে ১১৯। সেখান থেকে রাসেলের তাÐবে দুইশ ছাড়ানো সংগ্রহ পায় তারা। দলটির হয়ে অভিষেকে ৪০ বলে ৩টি করে চার ও ছক্কায় ৫৪ রান করেন ইংলিশ ওপেনার ফিল সল্ট। রান তাড়ায় হায়দরাবাদের শুরুটা হয় ভালো। পাওয়ার প্লেতে ১ উইকেট হারিয়ে ৬৫ রান তুলে ফেলে তারা। একাদশ ওভারে দলের স্কোর একশ স্পর্শ করে ২ উইকেট হারিয়ে। এরপর রানের গতি কমে যায় তাদের। মাঝে উইকেটও পড়ে কয়েকটি। ১৭ ওভার শেষে দলটির রান ছিল ৫ উইকেটে ১৪৯। তখন ১৮ বলে দরকার ৬০। সেখান থেকেই আশা জাগিয়ে তোলেন ক্লসেন। স্পিনার ভারুন চক্রবর্তীর করা ১৮তম ওভারে ক্লসেন মারেন ২টি ছক্কা, একটি ছক্কা হাঁকান শাহবাজ আহমেদ। এই ওভারে আসে ২১ রান। ১৯তম ওভারে ঝড় বয়ে যায় আইপিএল নিলামের ইতিহাসে সবচেয়ে দামি ক্রিকেটার মিচেল স্টার্কের ওপর দিয়ে। আট বছর পর আইপিএলে ফেরা অস্ট্রেলিয়ান পেসারের এই ওভারে ৩টি ছক্কা মারেন ক্লসেন, একটি শাহবাজ। ওভারে আসে ২৬ রান। গত ডিসেম্বরের নিলামে ২৪ কোটি ৭৫ লাখ রুপিতে কলকাতা দলে আসা স্টার্ক ৪ ওভারে ৫৩ রান দিয়ে উইকেটশূন্য থাকেন। শেষ ওভারে দরকার ছিল ১৩ রান। পেসার হার্শিতের প্রথম বলে ক্লসেন ছক্কা মেরে সমীকরণ সহজ করে ফেলেন। পরের বলে এক রান নেন তিনি। এরপরই পাল্টে যায় চিত্র। তৃতীয় বলে লং অনে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন শাহবাজ। পরের বলের এক রান নিয়ে মার্কো ইয়ানসেন স্ট্রাইকে দেন ক্লসেনকে। কিন্তু ¯েøায়ার বল ঠিকমতো খেলতে পারেননি ক্লসেন, শর্ট থার্ডম্যানে অসাধারণ ক্যাচ নেন সুয়াশ শার্মা। শেষ বলে চার হলে ম্যাচ গড়াত সুপার ওভারে, কিন্তু হার্শিতের আরেকটি ¯েøায়ার বলে ব্যাটই ছোঁয়াতে পারেননি হায়দরাবাদ অধিনায়ক প্যাট কামিন্স। উল্লাসে মাতে কলকাতা শিবির।

 


এই বিভাগের আরো খবর
https://www.kaabait.com